বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯
Tuesday, 03 Sep, 2019 11:32:59 am
No icon No icon No icon

সাউথ আফ্রিকা ফেরত ব্যক্তি জমি দখল করে উল্টো প্রাণনাশের হুমকি দিচ্ছে সন্ত্রাসীরা

//

সাউথ আফ্রিকা ফেরত ব্যক্তি জমি দখল করে উল্টো প্রাণনাশের হুমকি দিচ্ছে সন্ত্রাসীরা


টাইমস ২৪ ডটনেট, ঢাকা: সাউথ আফ্রিকায় ১০ বছর পরবাস জীবন কাটি অতি কষ্টে উপার্জনের টাকা দিয়ে আরিফুল ইসলাম বাবু রাজধানীর পল্লবীর পলাশ নগরে ২০ কাঠা জমি ক্রয় করেন। তিনি সাউথ আফ্রিকার নাগরিক হয়েও দেশে এসে উপার্জনের টাকা দিয়ে জমি ক্রয় করে খামার করে বেকার সমস্যা দূর করছেন। এরই মধ্যে ক্রয়কৃত ২০ কাঠা জমির মধ্যে ১০ কাঠা জমি ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে কাউন্সিলর কাজী জহিরুল ইসলাম মানিক, কাজী হারুন অর রশিদ, পানি শাহীন ও দেলোয়ার দখল করে নিয়েছেন। বাকি জমিও দখল করে নেয়ার জন্য প্রতিনিয়ই প্রাণনাশের হুমকি ও মিথ্যা মামলা দিয়ে ধরিয়ে দেয়ার চেষ্টা করছে। এছাড়াও তাদের পালিত সন্ত্রাসী ও মাদক ব্যবসায়ীরা আরিফুল ইসলাম বাবুকে অবৈধ অস্ত্র ও মাদক দিয়ে ফাঁসিয়ে দেয়ার পাঁয়তারা করছে। বর্তমানে সাউথ আফ্রিকায় নাগরিক আরিফুল ইসলাম বাবু ও তার পরিবারের লোকজন নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। অভিযোগে জানা গেছে, রাজধানীর পল্লবী থানার ৫নং পলাশ নগরের স্থায়ী বাসিন্দা মরহুম অহিদ মোল্লার মেয়ে নূরুন নাহার পৈতৃক সম্পত্তি ২০ কাঠা জমি বিক্রি করেন কাফরুল থানার ৬নং পশ্চিম বাইশটেকীর স্থায়ী বাসিন্দা মো. আরিফুল ইসলাম বাবুর কাছে। জমির প্রকৃত মালিক নূরুন নাহার গত ৯ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ ইং তারিখে দলিল করে দেন আরিফুল ইসলাম বাবুকে। দলিল নম্বর হচ্ছে ৯৭৮। নূরুন নাহার জমি বুঝিয়ে দেন আরিফুল ইসলাম বাবুকে। এর মধ্যে মোসাম্মৎ রাবেয়া খাতুন নামে এক মহিলা উক্ত জমির দলিল করে দেন কাজী হারুন অর রশিদকে। অথচ রাবেয়া খাতুন নামে কাউকে চিনেন না জমির প্রকৃত মালিক নূরুন নাহার। রাবেয়া খাতুন নামে যে মহিলা জমি দলিল করে দিয়েছে তা জাল দলিল হিসাবে দাবি করেছেন নূরুন নাহার। জাল দলিলের মাধ্যমে ভূমিদস্যু হারুন অর রশিদ ও কাজী জহিরুল ইসলাম ২০ কাঠা জমির মধ্যে প্রায় ১০ কাঠা দখল করে নিয়েছে। বর্তমানে জমির মালিক মো. আরিফুল ইসলামকে ভূমিদস্যু ও সন্ত্রাসীরা প্রাণনাশের হুমকি দিচ্ছে। বাকি জমি দখল করে নেয়ার জন্য পাঁয়তারা করছে স্থানীয় সন্ত্রাসী ও ভূমিদস্যুরা।

এছাড়াও ভূমিদস্যু কাজী জহিরুল ইসলাম ও হারুন অর রশিদ অস্ত্র ও মাদকসহ বিভিন্ন মিথ্যা মামলা দিয়ে ওই জমি দখল করে নিবে বলেও হুমকি প্রদান করছে। বর্তমানে জমির মালিক আরিফুল ইসলাম জীবনের নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। এ ব্যাপারে ভুক্তভোগী আরিফুল ইসলাম স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী, আইজিপি, পুলিশ কমিশনার, ডিসি ও প্রধানমন্ত্রীর কাছে একাধিক অভিযোগ জমা দিয়েছেন। তিনি তাদের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। ভুক্তভোগী আরিফুল ইসলাম বাবু জানান, সাউথ আফ্রিকায় ১০ বছর পরবাস জীবন কাটি অতি কষ্টে রাজধানীর পল্লবীর পলাশ নগরে ২০ কাঠা জমি ক্রয় করি। সাউথ আফ্রিকার নাগরিক হয়েও আমি দেশে এসে উপার্জনের টাকা দিয়ে জমি ক্রয় করে খামার তৈরি করে বেকার সমস্যা দূর করছি। বিদেশ থেকে টাকা এনে দেশেই খরচ করছি। দেশ উন্নয়নের পাশাপাশি বেকার সমস্যা দূর করছি। এরই মাঝে প্রভাবশালী ভূমিদস্যু কাজী জহিরুল ইসলাম ও হারুন অর রশিদ ২০ কাঠা জমির পুরোটাই দখল করে নেয়ার জন্য পাঁয়তারা করছে। এরই মধ্যে ১০ কাঠা জমি দখল করে নিয়েছে। বাকি জমি দখলে নেয়ার জন্য আমার পিছনে সন্ত্রাসী লেলিয়ে দিয়েছে। আরিফুল ইসলাম বাবু ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের কাফরুল থানার যুগ্ম সম্পাদক হিসাবে রয়েছেন। ব্যবসার পাশাপাশি আওয়ামী লীগের দলের জন্য কাজ করে যাচ্ছেন। তিনি বঙ্গবন্ধুর আদের্শে বিশ্বাসী। তাই তিনি আওয়ামী লীগ দলের সাথে থেকে রাজনৈতিক করে কাফরুল, পল্লবী ও ভাসানটেক এলাকার মানুষকে বিভিন্নভাবে সহযোগিতা করছেন। উক্ত এলাকায় কেউ বিপদে পড়লেই সবার আগে তিনি দৌড়ে যান। তিনি মানুষকে ভালোবাসেন। মাদকের বিরুদ্ধে কথা বলেন। পুলিশ দিয়ে মাদক ব্যবসায়ীকে ধরিয়ে দেন। তাই কতিপয় অপরাধীর কাছে হয়েছেন শত্রু। বর্তমানে সন্ত্রাসীরা আরিফুল ইসলাম বাবু ও তার পরিবারের সদস্যদের হুমকি ও অনুসরণ করছে। তিনি ও তার পরিবারের লোকজন বর্তমানে নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন।

এই রকম আরও খবর




Editor: Habibur Rahman
Dhaka Office : 149/A Dit Extension Road, Dhaka-1000
Email: [email protected], Cell : 01733135505
[email protected] by BDTASK