demo
Times24.net
ময়মনসিংহে আ’লীগ নেতাসহ সিটি মেয়রের বিরুদ্ধে অপপ্রচার করার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন
Tuesday, 01 Oct 2019 17:33 pm
Times24.net

Times24.net

বিশেষ প্রতিনিধি,টাইমস ২৪ ডট নেট,ময়মনসিংহ থেকে : ময়মনসিংহ জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগ নেতাসহ ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের মেয়রের বিরুদ্ধে মিথ্যা, বানোয়াট অপপ্রচার চালিয়ে হেয় প্রতিপন্ন করার ঘৃণ্য অপচেষ্টার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছে জেলা আওয়ামী লীগ। ময়মনসিংহ প্রেসক্লাব মিলনায়তনে জেলা আওয়ামী লীগ আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মোয়াজ্জেম হোসেন বাবুল, সহ-সভাপতি আমিনুল হক শামীম ও মোমতাজ উদ্দিন, ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের মেয়র ইকরামুল হক টিটু, মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এহতেশামুল আলম, জেলা যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজী আজাদ জাহান শামীম।

মঙ্গলবার সকালে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করে জেলা আ’লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজী আজাদ জাহান শামীম বলেন, একটি কুচক্রীমহল জেলা আ’লীগের স্বনামধন্য নেতাদের হেয় প্রতিপন্ন করার ঘৃণ্য অপচেষ্টায় লিপ্ত হয়েছে। মহলটি বিএনপি ও জামায়াত-শিবিরের আশ্রয়-প্রশ্রয়ে রাজনৈতিক দেওলিয়াপনার পরিচয় দিয়ে মিথ্যা বানোয়াট, জঘণ্য ষড়যন্ত্রমূলক কূট-কৌশলের আশ্রয় নিয়েছে।

তিনি বলেন, জেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মোয়াজ্জেম হোসেন বাবুল একজন স্বনামধন্য আইনজীবী। তিনি যুদ্ধাপরাধীর বিরুদ্ধে এবং বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে কটূক্তিকারীদের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা করেছেন। ময়মনসিংহে আওয়ামীলীগের দলীয় কর্মকান্ড বেড়ে যাওয়ায় বর্তমান দলীয় কার্যালয়ে স্থান সংকুলান না হওয়ায় জেলা আ’লীগের নতুন কার্যালয় প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। সেখানে প্রতিদিন জেলা ও উপজেলার শত শত নেতাকর্মীর সমাগম হচ্ছে।

সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মোয়াজ্জেম হোসেন বাবুল ভাইয়ের অলকা নদীবাংলায় তার কোনো ফ্ল্যাট নেই। তিনি সেখানে একটি ফ্ল্যাট ভাড়া নিয়ে বসবাস করে আসছেন। তার কোনো প্রাইভেটকার নেই। চলেন রিকশায় অথবা দলীয় কর্মীদের মোটরবাইকে চড়ে।

তিনি লিখিত বক্তব্যে আরো বলেন, জেলা আ’লীগের সহ-সভাপতি আমিনুল হক শামীম ও তার ছোট ভাই মহানগর আ’লীগের সহ-সভাপতি ও ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের মেয়র ইকরামুল হক টিটু পারিবারিকভাবেই বড় ব্যবসায়ী। আমিনুল হক শামীম একজন ভিআইপি এবং সিআইপি। তিনি বিএনপি আমলে কারা-নির্যাতিত নেতা। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আ’লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী ছিলেন তিনি। তার দেশে ফাইভ স্টার হোটেলসহ বিভিন্ন বৈধ ব্যবসা রয়েছে।

তিনি আরো বলেন, মহানগর আ’লীগের সহ-সভাপতি ও ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের মেয়র ইকরামুল হক টিটুর বিরুদ্ধে মনগড়া, মিথ্যা ও বানোয়াট অভিযোগ করা হয়েছে, যা ফরমায়েসী অপপ্রচার ছাড়া আর কিছুই নয়। এসব মিথ্যাচারের তীব্র নিন্দা জানাই।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মোয়াজ্জেম হোসেন বাবুল, সহ-সভাপতি আমিনুল হক শামীম, মহানগর শাখার সহ-সভাপতি ও ময়মনসিংহ সিটি করপোরেশনের মেয়র ইকরামুল হক টিটুর নামে মিথ্যা, বানোায়াট ও উদ্দেশ্যপ্রণোদিত অপপ্রচারের বিরুদ্ধে কোতোয়ালী মডেল থানায় আইসিটি আইনে মামলা দায়ের করেছেন।