শনিবার, ২০ জানুয়ারী ২০১৮
Thursday, 04 Jan, 2018 12:14:14 pm
No icon No icon No icon

এক খণ্ড ভোরচাঁদ


এক খণ্ড ভোরচাঁদ


সংহিতা দেব : রাত শেষে একখণ্ড চাঁদ পেলাম আজ সূর্য খুঁজতে গিয়ে। এই আকস্মিক উপহার কেবল আমারই। চাঁদ বরাবরই আমার রক্ত শুষে নেয়। আস্ত কামড়ে খেয়ে নেয় আমার মখমলি নারী শরীর। পান করে আমার মস্তিষ্ক, আমার চেতনা। কতকত রাত জাগা চাঁদ খেয়েছে আমায়, আবার কত কত চাঁদ জাগা রাত খেয়েছি আমি তার হিসেব নেই। আজরাত উপহার দিল আমায় আস্ত এক খান ভোরের চাঁদ। চাঁদ-ভোর হল আমার জীবনে। অথবা বেঁচে থাকা শুরুয়াৎ হল, জীবনদিন গুনবো আজ থেকেই আবার না হয়.....

রাত যখন একটা একটা পদক্ষেপ ফেলে ভোরের আলোর দিকে এগিয়ে চলে তখন রাত-রমণীর পায়ের নুপুর ছন্দে দোলে।সেই নুপুরধ্বনি সজাগ করে প্রতিক্ষণে। রাত গভীরে ক্লান্ত শরীর নিজের বুকের ভিতর প্রান্তর খুঁজে পায়। আসতে করে কড়া নাড়ে পাঁজরগুলোয়। বুকের ভিতর উঁকি দিয়ে দেখতে চায় রাত জাগা সুঁইচোরা পাখির মত চঞ্চল মন। সারাদিন ডানা মেলে এলোমেলো উড়ে বেড়ানো মনটাও রাত হলে শান্ত হয়। রাতের প্রহরগুলো যখন বিনিদ্র কাটে, তখন সেই মন পাখিরও উৎসুকভাব বুকের উঠোনে কড়া নাড়ার। গহীন রাতে আজ পেয়েছি দেখতে কি আছে এই প্রান্তরে!! বুকের ভিতর শ্যাওলা জমে আছে কিছুটা আর আছে ধু ধু প্রান্তর। শ্যাওলা জমা ভাগটুকু ঘন সবুজ। দূর থেকে শ্যামলিমা বলে ভুল হলেও হতে পারে। কাছে এসে দেখি স্মৃতির পিচ্ছিল ফাঙ্গাস জমে উঠেছে সেখানে কেবল। কত সুখ-বেদনায় ভরা সেই হারিয়ে ফেলা স্মৃতিপট হাত বাড়িয়ে ছোঁয়া যায়, মুঠো বন্দী করতে গেলেই পিছলে যায়। তাই বুক জুড়ে সবুজ পিচ্ছিল গন্ধ পাই কিছু দিন থেকেই। তবুও বলি, জমাট বাঁধা সবুজাভ এই স্মৃতিপথ পরে থাক এক কোণায়। গহনরাতে বুকের ভিতর শূণ্য ক্ষেত্রের আলুথালু কর্ষণ আজ টের পেয়েছি। কতবিস্তর ধু ধু প্রান্তর আজও পরে আছে যেখানে রোমন্থন হয় শত উপলব্ধি। আজও বুঝি বেঁচে আছি প্রতিটি ধুলিকণায়। আজও শ্বাসযতি ধূলিরহিত বায়ু খোঁজে। রাত গভীরে মন সমর্পিতা থাকে। কিন্তু কার প্রতি কতটাই বা সমর্পিত সে মন? রাত দিয়ে দেয় এর উত্তর। সমর্পন তো আধা হয়না, অল্পবিস্তররও হয়না। সমর্পণ হয় নত করায়, নয় ঋজুতা আনে। হয় সমর্পন কর, না হলে না কর। সমর্পণ আঁজলা উপচে দান করতে শেখায়। হুম....সেই দান আমার ভালোবাসার দান, আমার অনন্তের দান, আমার বেদনার দান, আমার অশ্রুর দান, আমার শুভত্বের দান। আমার অন্তরের প্রান্তরে দাঁড়িয়ে আমার মন দান করে আজ সঘন রাতকে, দান করে আমার নিদ্রাহীনতাকে, দান করে আমার ক্ষুধা-তৃষ্ণাকে, দান করে আমার মৃতপ্রায় আমিত্বকে। ভোরের আকাশে একটাই সুর যেন মন্দ্রিত হচ্ছে আজ , 
"আমারে তুমি অশেষ করেছ এমনই লীলা তব
ফুরায়ে ফেলে আবার ভরেছ জীবন নব নব।"

(৫টা তেও আজ চাঁদ জেগে, আমারই সাথে আমার সুখজাগানিয়া চাঁদ)
মোবাইল ক্লিক, ঝাপ্সা মত।

এই রকম আরও খবর




Editor: Habibur Rahman
Dhaka Office : 149/A Dit Extension Road, Dhaka-1000
Email: [email protected], Cell : 01733135505
[email protected] by BDTASK