বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯
Tuesday, 19 Mar, 2019 12:43:01 pm
No icon No icon No icon

সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে বাংলাদেশ অশান্ত হয়ে উঠেছে

//

সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে বাংলাদেশ অশান্ত হয়ে উঠেছে


টাইমস ২৪ ডটনেট, ঢাকা: বাংলাদেশে হঠাৎ করে অশান্ত হয়ে উঠেছে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড। রাঙ্গামাটিতে সোমবার ব্রাশফারে ৭ জন নিহত ও ১৬ জন আহত হয়েছে। এরপর মঙ্গলবার প্রকাশ্যে রাঙ্গামাটি আওয়ামীলীগের সভাপতিকে গুলি করে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা। এছাড়াও নরসিংদীতে দুইগ্রুপে সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে ২ জন নিহত। রাজধানীর বাড্ডায় বোনের সামনে ভাইকে গুলি করে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা। এছাড়াও সুনামগঞ্জে ছুরিকাঘাতে আ’লীগ নেতা নিহত হয়েছেন। জানা গেছে, রাজধানীর মেরুল বাড্ডায় জুলহাস মোল্লা (৩৭) নামে এক প্রাইভেটকার চালককে গুলি করে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। সোমবার রাত ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।
গুলিবিদ্ধ অবস্থায় জুলহাসকে উদ্ধার ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নিয়ে গেলে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। জুলহাস সোলায়মান মোল্লার ছেলে। তারা বর্তমানে রাজধানীর পশ্চিম মেরুল বাড্ডায় ম-১০০ নম্বর বাড়িতে ভাড়াটিয়া হিসেবে থাকতেন।
নিহতের বোন শবমেহের জানান, রাত ১০টার দিকে ভাই-বোন মায়ের ওষুধ আনতে বাসা থেকে বের হন। এ সময় অজ্ঞাত দুই যুবক তার ভাইকে গুলি করে পালিয়ে যান। পরে তাকে উদ্ধার করে ঢামেক হাসপাতালে নিয়ে গেলে দায়িত্বরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।
ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ মর্গে রাখা হয়েছে বলে জানান ঢামেক পুলিশ ফাঁড়ির ইন্সপেক্টর বাচ্চু মিয়া।
রাঙ্গামাটির বিলাইছড়ি উপজেলায় আওয়ামী লীগ সভাপতি সুরাত কান্তি তঞ্চঙ্গ্যাকে (৫৮) গুলি করে হত্যা করেছেন দুর্বৃত্তরা। মঙ্গলবার সকাল ৯টার দিকে উপজেলার আলিকিয়ং এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত সুরাত কান্তি তঞ্চঙ্গ্যা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি। তার বাড়ি একই এলাকায়।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বিলাইছড়ি আলিকিয়ং এলাকার নিজ বাড়ি থেকে বের হওয়ার পর ৪-৫ জনের একদল দুর্বৃত্ত সুরাত কান্তিকে গুলি করে পালিয়ে যায়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়ার পথে সুরাত কান্তির মৃত্যু হয়।
জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. মুসা মাতব্বর জানান, আধিপত্য বিস্তারের জেরে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির (জেএসএস) দুর্বৃত্তরাই সুরাত কান্তিকে গুলি করে হত্যা করেছেন।
সুনামগঞ্জ সদর উপজেলায় দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে জয়নাল আবেদীন (৩৫) নামে ইউপি আওয়ামী লীগের এক নেতা নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে তিনজনকে আটক করেছে পুলিশ। সোমবার দিবাগত রাত ১টার দিকে উপজেলার ইসলামপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত জয়নাল আবেদীন উপজেলার জাহাঙ্গীরনগর ইউপির সাধারণ সম্পাদক। তিনি ইসলামপুর গ্রামের মুছলিম উদ্দিন ছেলে।
সুনামগঞ্জ সদর থানার ওসি শহীদুল্লা জানান, পূর্ব বিরোধের জের ধরে রাত ১টার দিকে বাড়ির বাইরে ৪-৫ জন দুর্বৃত্ত মুছলিম উদ্দিনকে ছুরিকাঘাত করে। এতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়। নিহতের মৃতদেহ উদ্ধার করে সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে তিনজনকে আটক করা হয়েছে। তাদের জিজ্ঞাসাবাদ চলছে বলে জানান ওসি।
অপরদিকে, নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলায় আধিপত্য বিস্তার কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের দুপক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে। এ সময় গুলিবিদ্ধ হয়ে দুই যুবক নিহত এবং আহত হয়েছেন তিনজন।মঙ্গলবার ভোরে উপজেলার চরাঞ্চল মির্জাচরে এ ঘটনা ঘটে।নিহতরা হলেন- মির্জাচর ইউপি চেয়ারম্যান জাফর ইকবাল মানিকের ভাতিজা ইকবাল হোসেন (৩০) ও একই গ্রামের আমানউল্লাহ (২৭)।এ ঘটনায় আহত সাজ্জাদ হোসেন (২৮) আজিজুল ইসলাম (২৬) রহমতউল্লাহকে (১৮) ঢাকায় পাঠানো হয়েছে।
নিহতের স্বজনরা জানান, আধিপত্য বিস্তার ও ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন কেন্দ্র করে বর্তমান চেয়ারম্যান যুবলীগের সভাপতি জাফর ইকবাল মানিকের সঙ্গে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ফিরোজ মিয়ার ছেলে ফারুক ইসলামের বিরোধ চলে আসছিল।এরই জের ধরে উভয়পক্ষের মধ্যে একাধিক সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। প্রতিপক্ষের হামলার মুখে চেয়ারম্যান জাফর ইকবাল মানিকের সমর্থকরা এলাকা ছাড়া হন।
মঙ্গলবার মানিকের সমর্থকরা এলাকায় প্রবেশের চেষ্টা করলে উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। এতে গুলিবিদ্ধ পাঁচজনকে নরসিংদী সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে দায়িত্বরত চিকিৎসক দুজনকে মৃত ঘোষণা করেন। বাকি দুজনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়।
রায়পুরা থানার ওসি (অপারেশন) মোজাফফর হোসেন জানান, হতাহতরা সবাই চেয়ারম্যান জাফর ইকবাল মানিকের সমর্থক। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।
এর আগে রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়িতে নির্বাচনকর্মীদের ওপর সন্ত্রাসীদের ব্রাশফায়ারে ৭ জন নিহত এবং ১৬ গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। 

এই রকম আরও খবর




Editor: Habibur Rahman
Dhaka Office : 149/A Dit Extension Road, Dhaka-1000
Email: [email protected], Cell : 01733135505
[email protected] by BDTASK