বুধবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৮
Tuesday, 09 Oct, 2018 08:05:25 pm
No icon No icon No icon

নেত্রকোনায় অপহরনের ৪ মাসেও উদ্ধার হয়নি স্কুল ছাত্র হৃদয়


নেত্রকোনায় অপহরনের ৪ মাসেও উদ্ধার হয়নি স্কুল ছাত্র হৃদয়


হামিদুর রহমান অভি, টাইমস ২৪ ডটনেট, নেত্রকোনার প্রতিনিধি: নেত্রকোনার দুর্গাপুর উপজেলায় স্কুলছাত্র অপহরন পুর্বক গুমের অভিযোগ উঠেছে ৫ জনের বিরুদ্ধে। ঘটনার প্রায় ৪ মাস পেরিয়ে গেলেও ৯ বছরের শিশু হৃদয়কে উদ্ধার করতে পারেনী স্থানীয় প্রশাসন। গত ২৮.০৩.২০১৮ইং তারিখ বোধবার সকাল আনুমানিক ১০ ঘটিকার দিকে এই ঘটনা ঘটে। অভিযুক্তরা হলেন, আব্দুল জলিল (৪০), পারভীন আক্তার (৩৫), স্বান্তনা আক্তার (২২) সাং- পুকুরিয়াকান্দা, ও ছালেমা আক্তার (৪০) সাং- রুহানীকান্দা, সর্ব-থানা : দুর্গাপুর, নেত্রকোনা সহ অজ্ঞাত আরো ২/৩ জন।
নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইব্যুনাল আদালত, নেত্রকোনা এর মোকাদ্দমা নং ২৬৭/২০১৮ এবং দুর্গাপুর থানার সাধারন ডায়েরী  নং - ২৬ সুত্রে জানা যায়, বাদী মো: শহীদ মিয়ার বসত ঘর থেকে মামলার ১ ও ৩ নং আসামী ভিকটিম মো: হৃদয় মিয়া’র (৯) কে জামা-কাপড় ও খেলার জিনিস কিনে দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে বাড়ি থেকে বের করে নিয়ে যায়। পরবর্তীতে এলাকার গন্যমান্য লোকজন বাদীর পক্ষে ভিকটিমকে ফেরত দিতে আসামীদের চাপ প্রয়োগ করলে প্রথমে হৃদয়কে ফেরত দেয়ার কথা স্বীকার করে। তবে ১নং আসামী আব্দুল জলিল ভিকটিমের পিতা মো: শহীদ মিয়াকে বলে যে, যদি তুই কোন প্রকার মামলা বা আইনগত ব্যাবস্থা করিস তাহলে ছেলেকে ফেরত দুরে থাক, খুন করিয়া লাশ গুম করে ফেলব।
ভিকটিমের পিতা আরও জানায়, বিষয়টি স্থানীয় কতক গন্যমান্য ব্যাক্তিবর্গগন আপোষ মিমাংসার কথা বলে কালক্ষেপন করতে থাকে। অনন্যুপায় হয়ে আমি গত ০৪/০৫/২০১৮ইং তারিখে পুনরায় দুর্গাপুর থানায় মামলা করিতে গেলে থানা কর্র্তৃপক্ষ তা গ্রহন না করায় এবং আমার সন্তান উদ্ধারে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা গ্রহন না করায় ন্যায় বিচারের স্বার্থে অত্র আদালতে মামলা দায়ের করি।

 

এই রকম আরও খবর




Editor: Habibur Rahman
Dhaka Office : 149/A Dit Extension Road, Dhaka-1000
Email: [email protected], Cell : 01733135505
[email protected] by BDTASK